আপনি কি সরকারী কর্মচারী?

তাহলে নিশ্চই আপনার ডিউটি পড়বে NPR ও তার বহুরূপী সার্ভে সংক্রান্ত কর্মে, এই রাজ বা ভিনরাজ্যে।

এতদিন DA-বোনাস, ধর্মঘটের অধিকার, বামেদের পক্ষে বা বিপক্ষে ইত্যাদি নিয়ে রক্তে ফিনকি তোলা মজলিশি আন্দোলন করেছেন।

কিন্তু এবারে আপনি হয়ত খেই হারিয়ে ফেলেছেন।

ঘরে স্ত্রী রয়েছে, স্ত্রীর সন্তানাদি রয়েছে। আপনার পিতামাতা রয়েছে

আপনি কি হতাশায় ভুগছেন?

জীবনকে নিরর্থক মনে হচ্ছে?

এ দুনিয়ার কেউই আপনাকে বুঝতে চাইছে না?

আপনাকে মূল্যায়ন করছে না?

আপনাকে সান্ত্বনা দেয়ার কেউ নেই?

আপনাকে সাহায্য করার কেউ নেই?

চোখ বন্ধ করলে টাকলা শাহ্‌, আর চোখ খুললে পিসি দেখছেন?

বেখেয়ালে চুলকাতে গিয়ে পাছাতে জেব্রা ছোপ বানিয়ে ফেলেছেন?

ঢেকুর তুললেই কি আচ্ছেদিন বেড়িয়ে আসছে?

এতদিন রাষ্ট্রের জামাই আদরে বানানো পিঠের রেওয়াজি চর্বির সহ্যশক্তি সম্বন্ধে সন্দিহান রয়েছেন?

বাঁশ বন, শ্যাওড়ার রলা, শিরীষের ডান্ডা, কাঁঠাল কাঠের মুগুর চোখে পড়লেই কি রক্ত হিম হয়ে যাচ্ছে?

রাস্তার ধারে, রেললাইনে বিছানো, নদীর পাড়ে শুয়ে থাকা নিরীহ পাথর বা ইটের প্রতিটি খন্ডে কি নিজের নাম লেখা রয়েছে মনে হচ্ছে?

প্যারাগণ, অজন্তা, খাদিমস এর চাঁটি কি নন-ব্র্যান্ডেড চপ্পলের মতই নাকি এগুলোতে এক্সট্রা মার আছে এই ভেবে আকুল হয়ে যাচ্ছেন?

NRC-CAA-NPR বিরোধী যেকোনো জমায়েত দেখলেই কি বুকের রক্ত একপোয়া করে শুকিয়ে গিয়ে গলা গোবি মরুভূমি বানিয়ে দিচ্ছে?

শুধুই কি মনে হচ্ছে যে এরা আমাকে পেটাবার জন্যই সঙ্ঘবদ্ধ ভাবে একত্রিত হয়েছে?

মিসকল পার্টির ভরষাকে কি এসকর্ট কোম্পানির মতই নিষিদ্ধ ও ফালতু মনে হচ্ছে?

তাহলে আপনি একজন প্রকৃত দেশভক্ত।

ঢ্যান ট্যাঁ ন্যান…

আপনি সঠিক পোষ্টেই এসেছেন।

মোটেই আর হতাশ হবেন না, আপনার সব সমস্যার সমাধান রয়েছে এই পোষ্টে।

@মণ্ডল এন্ড @মণ্ডল প্রাঃ লিঃ কোম্পানির উপর ভরসা রাখুন।

মনের সব কথা খুলে বলুন এদের পেশাদার প্রতিনিধিদের সাথে, যেমন আমি।

নাহ, আমরা আপনাকে জনরোষ থেকে বাঁচাতে পারবনা।

“আপনাকে বাঁচাবো”- আমাদের তেমন কোনো গোপন অভিসন্ধিও নেই।

নাহ, বেতন-ডিএ-বোনাস-ইনক্রমেন্ট এর জন্য নয়; ওগুলো আপনারই প্রাপ্য।

আপনি গণপিটুনি খাওয়ার হকদার, কারন পোষ্টাল ব্যালটে আপনাদের ৮০% এর সদস্যের অধিক চৌকিদারের পক্ষে ছিলেন, বাকিরা চৌকিদারের “দিদি-দিদি-দিদি” পক্ষে থেকে পরোক্ষে টাকলা শাহকে পুষ্ট করে ভরষা যুগিয়েছেন।

আপনার ভাগের মার গুলো সম্পূর্ণ আপনি নিজে খাওয়ার অধিকারী।

চৌকিদার স্বয়ং আপনার জন্য সংবিধান সংশোধন করে আপনার মার খাওয়ার অধিকার সুনিশ্চিত করেছে।

আমরা কোনো ভাবেই সংবিধানকে উল্লঙ্ঘন করার ভাবনা ভাবতেই পারিনা, বর্তমানে এটা আপনার মৌলিক অধিকার।

আপনার অর্জিত ভবিতব্যকে উপভোগ করার একমাত্র দাবীদার আপনি স্বয়ং, একান্তই নিজে।

আমরা তাহলে কি করব?

কীভাবে আপনাকে সাহায্য করব?

কীভাবে আপনাকে দিশা দেখাবো?

আমরা আপনাকে মার খাওয়ার জন মানসিক ও শারীরিক ভাবে গড়ে তুলব।

আপনিই হচ্ছেন শিক্ষিত মধ্যবিত্ত ভারতীয় সম্প্রদায়।

গুছিয়ে মিথ্যা বলার জন্য অভির পিসি আর প্রধান সেবকের বাছাই করা ভিডিও আপনাকে কীর্তন করে শোনানো হবে “টিন ভাঙা- লোহা ভাঙা” খরিদকার হকার বন্ধুদের দ্বারা।

তৃতীয়ত আপনার অন্তরের কদর্যতা যেটাকে আপনি চক্ষুলজ্জা দিয়ে ঢেকে রেখেছেন জনসমাজ থেকে, চক্ষুলজ্জা দূরীকরণ প্রকল্পের আওতায় রামবিলাস পাসোয়ানের ‘লোক জনশক্তি পার্টি’র বিশিষ্ট চসমখোরদের দ্বারা আপনাকে লজ্জামুক্ত করে গোমূত্রে স্থান করিয়ে শোধন করানো হবে।

এর পর শুরু হবে মূল চিকিৎসা।

যোগী আদিত্যনাথ, আসিন উইথারু, প্রজ্ঞা ঠাকুর, মাসুদ আজাহার, আসাউদ্দিন ওয়াইসির মত প্রতিষ্ঠিত সৎ জঙ্গীদের বিভিন্ন ব্যাবহারিক পদ্ধতি ব্যবহার করে আপনার সুশীলতার ছাল ছাড়িয়ে আপনার পাশবিক স্বত্বাকে জাগ্রত করে আপনাকে দৃশ্যত অশোভন (আহা- বৈশাখী থাকবে, থাকবে। এখনই অতো অধৈর্য হবার কিছু নেই) ও বর্বর করে তোলা হবে।

আপনার মেরুদণ্ডের ভক্তিস্কপি করে সেটাকে সুরুৎ বের করে এনে সেই সুতো দিয়ে টুপি বানিয়ে আপনার মটরের সাইজের মস্তিষ্ককে একোয়াগার্ড করে দেওয়া হবে।

নানান ধরনের পেশাদার মানসিক যন্ত্রণাদায়ী অভিজ্ঞ ব্যাক্তিদের দ্বারা সমৃদ্ধ নানা ধরনের পেশা থেকে আগত আমাদের ফ্যাকাল্টিরা আপনার উপরে মানসিক অত্যাচারের এমন চুড়ান্ত দশা নিয়ে আসবে যে আমাদের প্রতিষ্ঠান থেকে একবার পাশ করে বের হলে পৃথিবীর যে কোনো অত্যাচার সইতে পারবেন।

এছাড়া আমাদের এ্যামেচার স্বয়ংসেবক দলের দ্বারা সপ্তাহে একবার গণপিটুনির আয়োজন করা হয়ে থাকে, এখানে আপনাকে নির্মমভাবে যেমনখুশি প্যাদানো হবে, পেটাই পরোটা বিশেষজ্ঞদের দ্বারা গঠিত একটা সৈনিক দলের দ্বারা।

এছাড়া আপনাকে খোলা নদী চরে জলে সপসপে ভিজিয়ে ছেড়ে দেওয়া হবে ও দশদিক থেকে এলোমেলো পাথর ইট ছোঁড়া হবে আপনাকে লক্ষ্য করে, এখানে আপনি “র‍্যাটেল স্নেক” পদ্ধতিতে এঁকেবেঁকে চলা শিখে যথাসম্ভব পাথরকে লক্ষভ্রষ্ট করতে পারবেন।

আপনার পাছা, পেট, গাল ও নাককে এমনভাবে প্রস্তুত করে রাখা হবে যেমন ভাবে চরকের মানে গাজনের সন্ন্যাসীদের শরীরকে প্রস্তুত করা হয়ে থাকে।

আপনার সাঁতার ক্ষমতাকে বাড়াতে আমাদের একোরিয়ামে আপনাকে ছেড়ে দেওয়া হবে, যেখানে নীল নদের  অবসরপ্রাপ্ত কুমিরের দল আপনাকে দৌড়িয়ে ক্লান্ত করে আপনার শরীরকে মেদমুক্ত তন্দরুস্ত করে অত্যাচার সওয়ার জন্য তৈরি হয়ে যাবে। এই কুমিরেরা শুধু চাঁটে, এরা সকল দাঁত দেওঘরে রেখে এসেছে।

রামনবমী আর মহরমের জুলুশের জন্য বছরে দুদিন মাত্র ব্যবহৃত অস্ত্রসম্ভার গুলোকে আমরা ব্যাবহার করব সরকারী অফিসার কল্যাণে, ওগুলো নিয়ে আপনার বাড়ির বাইরে আমাদের স্বেচ্ছাসেবকেরা সন্ধ্যার পর থেকেই স্লোগান দেবে চিৎকার করে। আপনি কোন ধর্মের সেই হিসাবে ওরা স্লোগান বাঁধবে। এতে করে আপনি সহ আপনার বাড়ির লোকেরাও আপনার কৃতকর্মের আগামীর ফল কিছুটা চাক্ষুষ করবে।

জিহ্বার লেহন ক্ষমতা বাড়াতে আমাদের অত্যাধুনিক ফাল টেকনোলজির মাধ্যমে গোমাতার জিভের ন্যায় আপনার জিভের উপরে এক্সট্রা ডট বসিয়ে দেওয়া হয়। জাতিতে মুসলমান হলে আপনার জন্য উঠের জিভের বিকল্পও থাকবে।

এছাড়া গোপনাঙ্গে মধু মাখিয়ে পিঁপড়ের ঝাঁকে ছেড়ে দেওয়া, ন্যাংটা করে বরফের স্ল্যাবে বেঁধে রাখা, শোল মাছ ভর্তি তাঙ্কে উলঙ্গ ছেড়ে দেওয়া, নাগপুরের মাটি মাখিয়ে নরম আঁচের তন্দুরে সেঁকে দেওয়া, নরগোবর খাইয়ে পাপশোধনের মত স্পেশাল ক্লাসিক ক্লাসের পরিষেবা শুল্কযোগ্য।

এরপর শরীর সারাতে আমাদের প্রস্তাবিত বিভিন্ন মাসাজ সেন্টারে ‘সাবান মাসাজ’ নিতে চাইলে সেটাও সামান্য মূল্যে অর্পন করা হয়।

অন্তিম ধাপে নানা সদগুরু, পীর, ভিক্ষু, ও মিশনারি চ্যারিটির ঠিকানা আমদের তরফে থেকেই আপনাকে দিয়ে দেওয়া হবে- যারা আপনাকে অবশিষ্ট জীবন ধরে লুটতে থাকবে।

আসন সংখ্যা সীমিত,

দ্রুত নাম লেখান।

ফোন করুন 9953588585 নাম্বারে।

বিফলে মূল্য ফিরত।

পরীক্ষা প্রার্থনীয়।

আমাদের কোনো শাখা নেই।

টিং টিং টি টিং

বিঃদ্রঃ- আপনার যদি রাজীব কুমার টীকা নেওয়া থাকে তাহলে দয়াপূর্বক আমাদের মহামর্যাদা সম্পন্ন স্বয়ংস্খলিত সংস্থানের দুয়ার মারিয়ে একে অপবিত্র করে তুলবেননা।

Leave A Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *