Category Archives: ছড়া

ঘরের চাবি

ভেঙে মোর ঘরের চাবি নিয়ে যাবি কে আমারে দুর হ করোনা! চাইনা তোমার দেখা, তবু একা একা দিন যে আমার কাটে না রে ॥ ভেঙে মোর ঘরের চাবি নিয়ে যাবি কে আমারে বুঝি গো লকডাউনও, বুঝি ওই রুলের গুঁতো কালশিটে দেখা দিল পাছার-পারে– সমুখে ওই হেরি পথ, করোনা রথ পৌঁছে দেবে যম-দুয়ারে ॥ ভেঙে মোর

Read More

পেটুক

বাক জলপানের অনুকরণে নাটক চরিত্র পেটুক ঝাঁকিওয়ালা আঁতেল ১ আঁতেল ২ কবি খোকা খোকার কাকু ছাতা মাথায় এক পেটুকের প্রবেশ, পিঠে লাঠির আগায় লোট-বাঁধা পুঁটলি। টাকমাথা, ইয়া ভুঁড়ি, গলায় ডায়জিন, ওমেজ, এন্টাসিডের মালা। হাতে এল্যুমিনিয়ামের থালা, উদভ্রান্ত চেহারা, জুলুজুলু চোখে এদিক ওদিকে ইতস্তত নজর- পেটুকঃ নাহ ‒ একটু বিরিয়ানি না পেলে আর চলছে না। সেই

Read More

বিরিয়ানিবালা মুঘলা খাদ্যালয়

বেণীমাধব, বেণীমাধব, তোমার বাড়ি খাবোবেণীমাধব, তুমি কি আর আমার কথা ভাবো?… বেণীমাধব, মাংস কষা খাসি গোলবাড়ি-খাইয়েছিলে, তোমার আমার ঘুচেছিল আড়ি। ভিক্টোরিয়ার পেরেম করি, ঘন ঝোপঝাড়-লৌক্ষৌ গিয়ে কাবাব খাবো, খাইয়েছিলে বাড়;আমি তখন কিশোরী মেয়ে, তোমার সদ্য দাড়ি-মুখটা যেন গোলপানা, বিরিয়ানির হাঁড়ি। বেণীমাধব, বেণীমাধব, খাদ্যরুচি ভালোমাংস,আলু, গোটা ডিমে, বাসমতি চালও-মসলা দিয়ে বানিয়েছিলে, নিজে আপন ঘরে,বেণীমাধব, তোমার বাবা

Read More

ঈশ্বরের পাঁচালী

বাংলার মেদিনীতে করে আলো ঘর, জন্মাইলো যুগপুরুষ বিদ্যাসাগর। ভগবতী মাতা তাঁর, জনক ঠাকুরদাস মাতুলালয় বীরসিংহে আজন্ম নিবাস। কালী কান্তের পাঠশালায় প্রাথমিক শিক্ষা; রক্তে ছিল রামজয় পণ্ডিতের দীক্ষা। পদব্রজে কলিকাতা, মাইল ফলক দেখে; ইংরেজি সংখ্যা তিনি নিয়েছিলেন শিখে। আশ্রয় মিলিল তথায় সিংহ পরিবারে; সংস্কৃত কলেজে দাখিল করে দিল তাঁরে। তৃতীয় শ্রেনীতে ছিলেন, তিন বৎসর কাল; সহপাঠী

Read More

হিন্দি যখন রাষ্ট্র ভাষা

শুরু যখন কর্তেই হবে, সেটা এখনই করলাম, রাষ্ট্র ভাষা বলে কথা, ভবিষ্যৎ। সৌরভ রায়ের টাইমলাইনে দেখে এই পুরকিটা জাগল। সুরজ ইন্দর প্রভু ভগবানজীকে দিয়েই শুরু করলাম- কুম্ভার মহাল্লাকি বৈল গাড়ি, ভর ভরকে ঘড়া হান্ডি। বাহন চালক বন্সীসুরত, সাথ সাথমে ভাঞ্জা মদন। মান্ডী বৈঠা শুক্করবারকো বক্সীগঞ্জ কী পদমা কিনারা মে। সামান সওদা জুটাকর লাকে গাঁও ওয়ালো

Read More

গল্পের আত্মহত্যার গল্প

১) ভীষণ রকম হতাশ হয়ে তিনকড়ি চাঁদ কুণ্ডু, বিচ্ছিরি সিদ্ধান্ত নিল, যার নেইকো মাথামুণ্ডু; নিরুদ্দেশে যাবে! নাকি করবে আত্মহত্যা! কৌশল তার যাই হোক, সে রাখবেনা তার সত্তা। ভাবতে ভাবতে দিন ফুরিয়ে রাতের পরে ভোর, ফকির সাধুর আবাস হয়ে গনৎকারের দোর; তাবিজ কবজ ঝাড়ফুঁকেতে হয়নি কোনো কাজ, বাস্তুশাস্ত্র যোগবিদ্যাও মিথ্যা হল আজ। প্রথম বারে বিফল চেষ্টা,

Read More

তোলপাড়িয়ে উঠল পাড়াঃ আধুনিক

চেয়ার মোছা কবিঃ- অনশনেতে মরছে ওরা                        তবু পিসি দেন না সাড়া! জাগুন শিগ্‌গির জাগুন্‌।ফ্রেঞ্চ কুমড়োঃ-     বিরোধী দলগুলো যে                        চুপ রয়েছে, কই সে বাজে–বুদ্ধি GB-           বিরোধী বাজবে পরে, এখন রাজ্যে লাগল আগুন।  পিসিঃ-            অনশনে গেলে পরে                        হাজার কোটি আসবে ঘরে?স্থবির কুমনঃ-      সোশ্যালমিডিয়া উঠল জ্বলে, ঊর্ধ্বশ্বাসে ভাগুন।  পিসিঃ-            বড্ড জ্বালায় ঘেউ ঘেউ রবজনগণঃ-           জ্বলবে আগুন চুরি গেছে JOB                        ফুটপাথে

Read More

কুড়িয়ে পাওয়া

কুড়িয়ে পাওয়া জীবননগরশুরু থেকে শুধু ধার;সকল দাতার অভিনয় পিছেঋণের বোঝার ভার। হাসি কান্নার দিনযাপনেসদাই সুখের খোঁজ;আরো ভালো থাকার নেশায়বিষাদ বেলা রোজ। টুকরো টুকরো ছেঁড়া তমসুখসেলাই করলে তবে;রংবাহারি চাঁদোয়াঝালরশামিয়ানা হয়ে রবে। একটি ক্ষনেই জন্ম, আবারএক পলকেই মরণ;আর মধ্যখানের সময়টুকুপ্রশন্ন ক্লেশ বরণ। প্রবাহমান অশ্রুসিন্ধু, সহচরীনদী আর সাথী আশ;সময়ের কাছে বারবার হেরেবীজিতের নাগপাশ। পরম বলে কিঞ্চিৎকরআদপে সবই ছলনামহাত্যাগীও

Read More

মদন গান

একটা ভক্তিগীতি পেশ করলাম, সাতদিন ত্রিসন্ধ্যা জপ করুন, অষ্টম দিন মিরাকেল ঘটবেই ঘটবে। (শঙ্খ বাজিয়ে মাকে ঘরে এনেছি, সুগন্ধে ধূপ জ্বেলে আসন পেতেছি।) সুরে সুরে সমবেত ভাবে গাইবেন। পেটো ফাটিয়ে, তোমায় ঘরে আনবোফরেন লিকার, দিয়ে আতর বানাবো।ত্রিফলা জ্বেলে, নেবো তোমায় বরণ করেমামা-টি গর্মেন্টে ফেরো আলো করে।এসো দাদা আমার, বোসো ঘরেসাজাও চোলাই ঠেক আলো করে।। কচি

Read More

ভুঁড়িকাব্য #১

এটা আমার নিজের লেখা নয়, দারুণ পছন্দ বলে এটা রাখলাম শুধু কেজি কুড়ি ছিল মোর ভুঁড়িআর সবই গেছে ঝরেতুমি কয়ে দিলে এ ভুঁড়ি থাকিলেচলিবে কেমন করে কহিলাম আমি কোরো না আসামীবোকো না দিবস রাতিচেয়ে দ্যাখো মোর আছে বড় জোরছোটোখাটো নেয়াপাতি সপ্ত পুরুষে gene চলে আসেভুঁড়ি আসা তাতে সহিহেলথ-এর ডরে ঘোচাবো কী তারেএত পাপিষ্ঠ নহি আঁখি

Read More